1. [email protected] : শেয়ারখবর : শেয়ারখবর
  2. [email protected] : Admin : Admin
  3. [email protected] : muzahid : muzahid
  4. [email protected] : nayan : nayan
সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ০৯:৩৯ অপরাহ্ন

ইবনে সিনার শেয়ারহোল্ডারদের মাঝে লভ্যাংশ বিতরনের সিদ্ধান্ত

  • আপডেট সময় : রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৩১৭ বার দেখা হয়েছে
ibn-sina

শেয়ারবাজারের তালিকাভুক্ত ইবনে সিনা ফার্মাসিউটিক্যালসের পর্ষদ ২০১৮-১৯ অর্থবছরের ব্যবসায় অর্জিত আয়ের ৩১ শতাংশ শেয়ারহোল্ডারদের মাঝে বিতরনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বাকি ৬৯ শতাংশ রিজার্ভে রাখা হবে। তবে আগের বছরে এই হার ছিল ৭২ শতাংশ।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ডিএসই তথ্যানুযায়ী, ইবনে সিনার ২০১৮-১৯ অর্থবছরে সমন্বিত শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১২ টাকা ৪৩ পয়সা। এর বিপরীতে পর্ষদ ৩৮.৫০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। যা এর আগের অর্থবছরে ১০ টাকা ৭৬ পয়সা ইপিএসের বিপরীতে ছিল ৩০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ।

এদিকে কোম্পানিটির ২০১৮-১৯ অর্থবছরে শেয়ারপ্রতি ১২ টাকা ৪৩ পয়সা হিসেবে মোট ৩৮ কোটি ৮৪ লাখ টাকার নিট আয় হয়েছে। এরমধ্য থেকে শেয়ারহোল্ডারদের শেয়ারপ্রতি ৩ টাকা ৮৫ পয়সা বা ৩৮.৫০ শতাংশ হিসাবে মোট ১২ কোটি ৩ লাখ টাকা বা আয়ের ৩০.৯৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেওয়া হবে। আর বাকি ২৬ কোটি ৮১ লাখ টাকা বা ৬৯.০৩ শতাংশ রিজার্ভে যোগ হবে।

এর আগে ২০১৭-১৮ অর্থবছরের ব্যবসায় শেয়ারহোল্ডারদের মাঝে আয়ের ২৭.৮৬ শতাংশ লভ্যাংশ আকারে বিতরন করে ইবনে সিনা। তবে এ বছর থেকে আয়ের কমপক্ষে ৩০ শতাংশ ঘোষণার বাধ্যবাধকতার কারনে ইবনে সিনায় লভ্যাংশ ঘোষণা বেড়েছে।

এছাড়া আগের বছরের ব্যবসায় অর্জিত ৩৩ কোটি ৬৩ লাখ টাকা আয়ের মধ্যে ৯ কোটি ৩৭ লাখ টাকা বা ২৭.৮৬ শতাংশ বিতরন করা হয়েছিল। বাকি ২৪ কোটি ২৬ লাখ টাকা বা ৭২.১৪ শতাংশ দিয়ে রিটেইন আর্নিংস বাড়ানো হয়েছিল।

৩১ কোটি ২৪ লাখ টাকা পরিশোধিত মূলধনের ইবনে সিনায় ১১৬ কোটি ৫৮ লাখ টাকার রিজার্ভ রয়েছে।

উল্লেখ্য শনিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) ইবনে সিনার শেয়ার দর দাড়িঁয়েছে ২৫২.৩০ টাকায়।

শেয়ার দিয়ে সবাইকে দেখার সুযোগ করে দিন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ